• ১৮ই মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ , ১০ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

চেয়ারে বসাকে কেন্দ্রকরে হামলায় কলেজছাত্র নিহত

bilatbanglanews.com
প্রকাশিত জুন ২৫, ২০২১
চেয়ারে বসাকে কেন্দ্রকরে হামলায় কলেজছাত্র নিহত

বিবিএন ডেস্ক: নেত্রকোনার দুর্গাপুর উপজেলায় একটি দোকানের সামনে রাখা চেয়ারে বসাকে কেন্দ্র করে হামলায় এক কলেজছাত্র নিহত হয়েছেন। এ সময় ওই ছাত্রের বাবা ও চাচাতো ভাই আহত হন। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার চণ্ডীগড় ইউনিয়নের বড়ইউন্দ বাজারে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত ওই কলেজছাত্রের নাম মো. আনোয়ার হোসেন (২৫)। তিনি ময়মনসিংহের আনন্দমোহন কলেজের ইতিহাস বিভাগের স্নাতকোত্তরের ছাত্র ছিলেন। আহত দুজন হলেন নিহত আনোয়ারের বাবা মকবুল হোসেন ও চাচাতো ভাই মনির হোসেন (২৪)।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গতকাল সন্ধ্যা সাতটার দিকে আনোয়ার হোসেন গ্রামের বাজারে যান। সেখানে একটি চায়ের দোকানের সামনে রাখা চেয়ারে তিনি বসতে চান। এ সময় কলমাকান্দা উপজেলার নাজিরপুর ইউনিয়নের আনন্দপুর এলাকার মরম আলীর ছেলে জুয়েল মিয়া (২০) এতে বাধা দেন। এ নিয়ে উভয়ের মধ্যে কথা-কাটাকাটির একপর্যায়ে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। স্থানীয় লোকজন তাদের থামিয়ে দেন। রাত আটটার দিকে আনোয়ার বাজারের একটি মুদিদোকানে বসেছিলেন। এ সময় তার চাচা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সদস্য আবদুল জব্বার বিষয়টি মীমাংসার জন্য আনোয়ারকে আরেকটি দোকানের সামনে ডেকে নিয়ে যান। সেখানে ওত পেতে থাকা জুয়েল মিয়া, তার বড় ভাই সোহেল মিয়া (২৩), বাবা মরম আলী (৪৬), স্বজন আমছর আলীসহ কয়েকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে আকস্মিক তাঁর ওপর হামলা চালান।

এতে আনোয়ার, তার বাবা মকবুল হোসেন ও চাচাতো ভাই মনির আহত হন। স্থানীয় লোকজন তাঁদের উদ্ধার করে দুর্গাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক আনোয়ারকে মৃত ঘোষণা করেন। গুরুতর আহত মকবুল ও মনিরকে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাতেই ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। বর্তমানে তাঁরা সেখানে চিকিৎসাধীন। এদিকে আনোয়ারের মৃত্যুর খবর এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে উভয় পক্ষের মধ্যে পাল্টাপাল্টি ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এ ঘটনায় জড়িত অভিযোগে একজনকে আটক করেছে পুলিশ। আজ শুক্রবার সকালে এ প্রতিবেদন লেখার সময় এলাকায় পুলিশ মোতায়েন থাকতে দেখা গেছে।

দুর্গাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাহনুর এ আলম বলেন, কলেজছাত্রের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ নিয়ে থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত ব্যক্তিদের আটক করতে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে।