• ৩০শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ১৬ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ , ১লা জিলহজ, ১৪৪৩ হিজরি

জিএস সি নর্থের অভিষেক অনুষ্ঠান সম্পন্ন

bilatbanglanews.com
প্রকাশিত জুন ৫, ২০২২
জিএস সি নর্থের অভিষেক অনুষ্ঠান সম্পন্ন

এস হোসেইন:: গ্রেটার সিলেট কাউন্সিল নর্থের নবনিযুক্ত কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠান খুব জাঁকজমকপূর্ণ ভাবে গত ৩০শে মে সোমবার যুক্তরাজ্যের ব্র্যাডফোর্ড এর স্থানীয় প্রেস্টিজ হলে সম্পন্ন হয়।

সংগঠনের সভাপতি‌ হাজী ফয়জুল ইসলাম এর সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারী জয়নুল আবেদিন বাবুল ও জয়েন্ট সেক্রেটারি সাংবাদিক নুরে আলম রব্বানীর যৌথ সঞ্চালনায় সভার শুরুতে মহাগ্রন্থ আল কোরআন থেকে তেলাওয়ত করেন আবদুর রহমান লোদী।

অনুষ্ঠানে আগত সকলের সম্মিলিত অংশগ্রহণে বাংলাদেশের জাতীয় সংগীত পরিবেশনের পর নতুন কমিটির সকল সদস্যদের উপস্থিত জনতার মধ্যে পরিচয় করিয়ে দেন সংগঠনের প্রতিষ্ঠাকালীন সভাপতি মোহাম্মদ মাসুক মিয়া।

জিএস সির নবনিযুক্ত ট্রেজারার সাংবাদিক সারওয়ার হোসেইন এর উদ্বোধনী বক্তব্যের পর অনুষ্ঠানে আসা আগত অতিথিদের মধ্যে থেকে বক্তব্য রাখেন – ব্রাডফোর্ড সিটি কাউন্সিলের লর্ড মেয়র মার্টিন লব, জিএসসি কেন্দ্রীয় সভাপতি ব্যারিস্টার আতাউর রহমান, রচডেল বরা কাউন্সিল মেয়র সৈয়দ আলী আহমেদ,রোদারহাম কাউন্সিল মেয়র তাজামুল খান, কিতলি টাউন মেয়র লুক মনসেল, কিতলি সাবেক এমপি জন গ্রোগান, ওল্ডহ্যাম কাউন্সিলের কাউন্সিলর আব্দুল জব্বার, কাউন্সিলার হাসান খান, জাফর আলী, জিএসসি কেন্দ্রীয় ট্রেজারার সালেহ আহমেদ ও সাংগঠনিক সম্পাদক আজকের বেগ , কাউন্সিলার নেছার‌ আলী, আব্দুস সালাম , আব্দুল হান্নান, আনোয়ার আলী জিতু‌‌ সহ জিএস সির বিভিন্ন রিজিয়ন ও শাখার নেতৃবৃন্দ।

জিএস সির সেন্ট্রাল নেতৃবৃন্দ তাদের বক্তব্য উল্লেখ করেন, গ্রেটার সিলেট কাউন্সিল ১৯৯৩ সাল থেকে অদ্যবধি যুক্তরাজ্যে অবস্থিত সকল বাংলাদেশীর দাবি-দাওয়া আদায়ের লক্ষ্যে ও বৃহত্তর সিলেটের প্রত্যন্ত অঞ্চলে গরীব অসহায় মানুষের সাহায্যে, বিত্তহীন অর্থহীন মেধাবী শিক্ষার্থীদের শিক্ষার মানোন্নয়ন সহ বিভিন্ন মহামারী ও দুর্যোগপূর্ণ মুহূর্তে আর্ত মানবতার কল্যাণে ও মানব সেবায় কাজ করে যাচ্ছে।

সবায় আগত অতিথিরা সমাজসেবায় ও মানুষের কল্যাণে জিএস সির সকল অবদানের কথা স্বীকার করে উল্লেখ করেন, জিএস সি গণমানুষের কল্যাণে প্রবাসী বাংলাদেশিদের অধিকার বাস্তবায়নে যেসব কাজ করে যাচ্ছে তা সত্যিই প্রশংসার দাবিদার। অদূর ভবিষ্যতে এদেশে বেড়ে ওঠা তরুণ প্রজন্মের সুসংগঠিত ও সঙ্ঘবদ্ধ করে জিএস সির আগামী দিনের কার্যক্রম অব্যাহত রাখার দাবি জানানো হয়।

সভার শেষ পর্যায়ে বিগত দিনের জিএস সির বিভিন্ন সামাজিক এক্টিভিটির উপর একটি ডকুমেন্টারি প্রদর্শন করা হয় ‌।

পরিশেষে মনোজ্ঞ সংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পর আগত অতিথিদের মধ্যে লাঞ্চ পরিবেশন করে সভার সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।