• ১৬ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ২রা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ , ১০ই জিলহজ, ১৪৪৫ হিজরি

রোটারিয়ানরা আর্তমানবতার জন্য কাজ করেন –পীর মিসবাহ এমপি

bilatbanglanews.com
প্রকাশিত জানুয়ারি ৪, ২০২২
রোটারিয়ানরা আর্তমানবতার জন্য কাজ করেন –পীর মিসবাহ এমপি

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ জাতীয় সংসদ সদস্য পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ বলেছেন, রোটারি ক্লাবের সদস্যরা সব সময় আর্ত মানবতার কল্যাণে কাজ করেন। এরই ধারাবাহিকতায় সুনামগঞ্জে দুস্থ মানুষের কল্যাণে ঢেউটিন প্রদানের মাধ্যমে মানবতার কল্যাণে যে অবদান রাখলেন তা অত্যন্ত প্রশংসনীয়। তিনি ঢেউ টিন গ্রহিতাদের উদ্দেশ্যে বলেন, দরিদ্র মানুষের মুক্তির একমাত্র পথ হচ্ছে শিক্ষা। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উপবৃত্তি প্রদানসহ শিক্ষার উন্নয়নে যেসব কর্মসূচি গ্রহণ করেছেন, সেইসব সুযোগকে কাজে লাগিয়ে উপযুক্ত শিক্ষা গ্রহণের মাধ্যমে আলোকিত নতুন প্রজন্ম গড়ে তুলতে হবে। নতুন টিনে ঘর আলোকিত হবে যদি সন্তানদের শিক্ষার আলোয় আলোকিত করা যায়। তিনি দারিদ্রতা থেকে মুক্তির জন্য সন্তানদের শিক্ষার আলোয় আলোকিত করার আহবান জানান।

রোটারি ইন্ট্যান্যাশনাল ডিস্ট্রিক্ট-৩২৮২-এর পক্ষ থেকে সুনামগঞ্জের বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের মধ্যে ঢেউ টিন বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি’র বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। ৪ জানুয়ারি মঙ্গলবার সকালে সুনামগঞ্জের এইচএমপি বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে জেলায় বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ৪০টি পরিবারের মধ্যে ৩বান করে ১২০ বান ঢেউ টিন বিতরণ করা হয়। রোটারি ইন্ট্যান্যাশনাল ডিস্ট্রিক্ট ৩২৮২-এর গভর্নর আবু ফয়েজ খান চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও ডিস্ট্রিক্ট ট্রেইনার পাস্ট ডিস্ট্রিক্ট গভর্নর অধ্যক্ষ লে. কর্নেল এম আতাউর রহমান পীরের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে অন্যানোর মধ্যে বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেন লেফটেন্যান্ট গভর্নর ডা. আব্দুস সালাম, ডিস্ট্রিক্ট সেক্রেটারি জালাল উদ্দিন বাবল,ু ডেপুটি গভর্নর কামাল উদ্দিন ভূঁইয়া, রোটারি ক্লাব সাউথ’র পিপি রোটারিয়ান আব্দুল মুহিত দিদার, ডিস্ট্রিক্ট গভর্নর সাপোর্ট টিম মেম্বার মো. ইকবাল হোসেন, এইচ এম পি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ইনছান মিঞা এবং টিন প্রাপ্তদের পক্ষে বক্তব্য রাখেন খুরশীদ আহমদ প্রমুখ।
সভাপতির বক্তব্যে রোটারি ইন্ট্যান্যাশনাল ডিস্ট্রিক্ট ৩২৮২-এর গভর্নর আবু ফয়েজ খান চৌধুরী বলেন,রোটারী সারা পৃথিবীতে হৃত দরিদ্র মানুষের সেবায় কাজ করে। সেবার মাধ্যমে যে আত্মতৃপ্তি পাওয়া যায় অন্য কোন কাজে এতো তৃপ্তি পাওয়া যায় না ।
উল্লেখ্য রোটারি ইন্ট্যান্যাশনাল ডিস্ট্র্রিক্ট ৩২৮২ থেকে বাংলাদেশের ৪টি স্থানের মধ্যে সুনামগঞ্জের ৪০টি পরিবারের মধ্যে প্রতিটি পরিবারকে ৩ বান করে ১২০ বান ঢেউ টিন বিতরণ করা হয়।