• ১৮ই মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ , ১০ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

যুক্তরাজ্যে চার মাস কোমায়,সুস্থ্য হয়ে ফিরেছেন পরিবারের কাছে

bilatbanglanews.com
প্রকাশিত জুলাই ৪, ২০২১
যুক্তরাজ্যে চার মাস কোমায়,সুস্থ্য হয়ে ফিরেছেন পরিবারের কাছে

বিবিএন ডেস্ক: কোভিডে আক্রান্ত হয়ে চার মাস কোমায়। কোমা থেকে ফিরে আবার চার ও এক বছরের শিশু সন্তানের মুখ দেখতে পারছেন তিনি। ফিরেছেন স্বাভাবিক জীবনে। কোভিডকালীন সময়ে যুক্তরাজ্যে সব থেকে দীর্ঘ সময় কোমায় থাকা রাজিন্দ্রের কাছে মনে হচ্ছে, তিনি আবার জন্ম নিয়েছেন।

জানা যায়, যুক্তরাজ্যের ৩৮ বছরের রাজিন্দ্র সিং কৃত্রিম শ্বাস-প্রশ্বাস নিয়ে যুক্তরাজ্যর ক্যামব্রিজের রয়েল পাপওর্থ হাসপাতালের আইসিউতে ছিলেন চার মাস। বিষয়টি নিয়ে হাসপাতালের পক্ষ থেক বলা হয়েছে, রাজিন্দ্র দীর্ঘ ১৫১ দিন হাসপাতালে ছিলেন। আর গত বৃহস্পতিবার রাজিন্দ্র সুস্থ্য হয়ে সেই হাসপাতাল থেকে স্থানান্তর হয়ে বর্তমানে রয়েছেন এসেক্স হাসপাতাল। ৩৮ বছরের রাজিন্দ্র চার বছর ও এক বছরের দুইটি সন্তান রয়েছে।

বিষয়টি নিয়ে রাজিন্দ্র বলেন, সন্তানদের আবার মুখ দেখতে পারবেন ভেবেই তিনি পুলকিত হচ্ছেন। তার কাছে মনে হচ্ছে আবারও পৃথিবীতে জন্মেছেন তিনি। ক্যামব্রিজ রয়েল পপওর্থ হাসাপাতাল থেকে বলা হয়েছে গত জানুয়ারীতে করোনা আক্রান্ত রাজিন্দ্র কোমায় চলে যান। এর পর এপ্রিল পর্যন্ত সে কোমাই ছিলেন। দীর্ঘ ১৩২ দিন তিনি কোমায় ছিলেন। সব মিলিয়ে ১৪২ দিন পর সে আইসিউতে ছিলেন। সব মিলিয়ে ১৫১ দিন পর এই রোগী হাসপাতাল থেকে সুস্থ্য হয়ে অন্য হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

অন্যদিকে যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে বলা হয়েছে, করোনাকালীন সময়ে অনেকে কোমায় চলে গিয়েছিলো। কিন্তু কাউকে সর্বোচ্চ ৩০ দিনের বেশি কোমায় রাখা সম্ভব হয়নি। কিন্তু রাজিন্দ্রের বিষয়টি আলাদা। ডাক্তারদের কাছে তার সুস্থ্য হওয়ার বিষয়টি ছিলো চ্যালেঞ্জ।

অন্যদিকে সুস্থ্য রাজেন্দ্র বলেন, তিনি এখনও হাসপাতালে রয়েছেন। তার ঘর থেকে হাসপাতাল মাত্র কয়েক মাইল। কিন্তু এখনও মনে হচ্ছে অনেক দূরে রয়েছেন তিনি। তিনি তার শিশু সন্তানদের কাছে ফিরতে পেরেছেন বলে ডাক্তারদের ধন্যবাদ জানান তিনি।(রানার মিডিয়া)