• ১৯শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ৩রা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ১৩ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরি

কুলাউড়ায় সিএনজি ও টমটম চালকদের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষ, শতাধিক গাড়ি ভাংচুর

bilatbanglanews.com
প্রকাশিত নভেম্বর ৪, ২০২০
কুলাউড়ায় সিএনজি ও টমটম চালকদের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষ, শতাধিক গাড়ি ভাংচুর

বিবি এন নিউজ কুলাউড়াঃ  মৌলভীবাজারের কুলাউড়ায় সিএনজিচালিত অটোরিকশা ও ব্যটারিচালিত অটোরিকশা (টমটস) চালকদের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষে আহত ৩২ জন শ্রমিক আহত হয়েছেন।

বুধবার ৪ নভেম্বর বেলা সাড়ে এগারোটা থেকে প্রায় তিনঘণ্টা ঘণ্টাব্যাপী থেমে থেমে চলা সংঘর্ষে রণক্ষেত্র পরিণত হয় পৌর শহর। উত্তেজিত দুপক্ষের শ্রমিকরা শতাধিক সিএনজি অটোরিকশা-ব্যটারীচালিত অটোরিকশা ভাঙচুর চালায়রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বুধবার বিকেল সাড়ে তিনটা পর্যন্ত কুলাউড়া পৌর শহরে থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে শহর জুড়ে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।সিএনজি অটোরিকশা-ব্যটারিচালিত অটোরিকশা শ্রমিক এবং স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়,  কুলাউড়ায় অবৈধ ব্যটারিচালিত অটোরিকশা বন্ধের দাবিতে মৌলভীবাজার জেলা অটো টেম্পু, অটোরিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন রেজি: নং চট্ট০-২৩৫৯) কুলাউড়া শাখার আয়োজনে পূর্ব ঘোষিত সিএনজি অটোরিকশা বন্ধ রেখে মানববন্ধন ও স্মারকলিপি কর্মসূচি পৌর শহরের স্টেশন চৌমুহনীতে শুরু হয় বুধবার সকাল ১১টার দিকে। মানববন্ধন কর্মসূচি চলাকালে সিএনজি অটোরিকশা শ্রমিকরা স্টেশন চৌমুহনীতে একটি ব্যটারিচালিত অটোরিকশা ভাঙচুর করা হয়।

এরপর মৌলভীবাজার জেলা রিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন  (রেজি: নং চট্ট: ২৪৫৩) কুলাউড়া উপজেলা শাখার শ্রমিকরা পাল্টা অবস্থান নেয় পৌর শহরের উছলাপাড়া এলাকার প্রধান সড়কে। এ সময় মানববন্ধনে অংশ নেওয়ার জন্য উপজেলার রবিরবাজার থেকে আসা সিএনজি অটোরিকশা শ্রমিকদের একটি মিছিল আলালপুর এলাকায় পৌঁছালে বিক্ষুব্দ রিকশা শ্রমিকরা বাধা প্রদান করলে আরো উত্তেজনাকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। এসময় দুই পক্ষের শ্রমিকরা সংঘর্ষে লিপ্ত হোন এবং সিএনজি অটোরিকশা ও ব্যটারিচালিত রিকশা ভাঙচুর করা হয়।

দফায় দফায় তিন ঘণ্টাব্যাপী চলা সংঘর্ষে উত্তেজিত দুপক্ষের শ্রমিকরা শহরের উত্তর রেল আউটার, চৌমুহনী, দক্ষিণ বাজার, মাগুরা, উছলাপাড়া, আলালপুর, স্কুল চৌমুহনী এলকায় প্রায় ৪০-৪৫টি সিএনজি অটোরিকশা এবং অর্ধশতাধিক ব্যটারিচালিত অটোরিকশা ভাঙচুর ও সিএনজি অটোরিকশা শ্রমিকরা পৌর শহরের বিভিন্ন এলাকায় অবস্থান নেন এবং উছলাপাড়ায় অবস্থিত মৌলভীবাজার জেলা রিকশা শ্রমিক ইউনিয়ন কুলাউড়া শাখার কার্যালয় ভাঙচুর চালায়।

সংঘর্ষে সিএনজি অটোরিকশা শ্রমিক ৫জন ও রিকশা শ্রমিক ২ জন আহত হয়ে কুলাউড়া উপজেলা স্থাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নেন। সংঘর্ষ চলাকালে লুৎফুর রহমান (৫০), মরম আলী (৪০) , নওশাদ (২৮), বদরুল (৩০), জব্বর (৩২) ফখরুল (২১), ফয়ছল (৩০)সহ উভয় পক্ষে ৩২ জন আহত হয়েছে। এদের মধ্যে লুৎফুর রহমান নামে ব্যটারিচালিত রিকশা চালক মারাত্মক জখমী হওয়ায় তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •