• ৫ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ , ২২শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ , ১৪ই রজব, ১৪৪৪ হিজরি

রায়হান মা-কে ফোন দিয়ে বাচার আকুতি জানিয়ে ছিল, বাচতে দেয়নি এস আই আকবর

bilatbanglanews.com
প্রকাশিত অক্টোবর ১৩, ২০২০
রায়হান মা-কে ফোন দিয়ে বাচার আকুতি জানিয়ে ছিল,  বাচতে দেয়নি এস আই আকবর

বিবি এন নিউজ সিলেটঃ বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়িতে পুলিশের নির্মম নির্যাতনে নিহত যুবক রায়হান আহমদ মৃত্যুর কয়েক ঘন্টা পূর্বে তার মায়ের সাথে কথা বলে বাচার আকুতি জানিয়ে ছিল কিন্তু বাচতে দেয়নি আইনের পোশাক পরিহিত এস আই আকবর। তার নেতৃত্বে রাতভর পাসবিক নির্যাতন করে বন্দর বাজার পুলিশ ফাড়িতে রায়হান কে হত্যা করা হয় বলে বিভিন্ন তদন্তে খবর বেরিয়ে আসছে।

চাদাঁর  জন্য রায়হান কে হত্যা করা হয় এটা এখন স্পষ্ট। অভিযুক্ত পুুুুুলিশ কর্মকর্তাদের এখন ও গ্রেফতার করা হয়নি। এ নিয়ে জনমনে ক্ষোভ বিরাজ করছে।

ভোর রাতে রায়হান যে ফোন নাম্বার থেকে কথা বলেন সেটা ছিলো বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়িতে কর্মরত কনস্টেবল তৌহিদ মিয়ার।

রায়হানের স্ত্রী তাহমিনা আক্তার তান্নির দায়ের করা মামলাসূত্রে জানা গেছে, গত শনিবার (১০ অক্টোবর) বিকাল ৩টার দিকে তার স্বামী রায়হান আহমদ নিজ কর্মস্থল নগরীর স্টেডিয়াম মার্কেটস্থ ডা. শান্তা রাণীর চেম্বারে যান। পরদিন (১১ অক্টোবর) ভোর ৪টা ৩৩ মিনিটে ০১৭৮৩৫৬১১১১ মোবাইল নাম্বার থেকে শ্বাশুড়ি (রায়হানের মা সালমা বেগম)-এর ব্যবহৃত মোবাইল নাম্বার (০১৭৮৭৫৭০৯৪৯)-এ কল দিলে সেটি রিসিভ করেন রায়হানের চাচা হাবিবুল্লাহ। এসময় রায়হান আর্তনাদ করে বলেন, তিনি বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়িতে আছেন। তাঁকে বাঁচাতে দ্রুত টাকা নিয়ে বন্দর ফাঁড়িতে যেতে বলেন রায়হান।